রবিবার, ১৪ অগাস্ট ২০২২, ০৩:০২ পূর্বাহ্ন
শিরোনামঃ
শিরোনামঃ
লালপুরে ভেল্লাবাড়ীয়া স্কুলের প্রধান শিক্ষকের অপসারণ ও কমিটি গঠনের দাবিতে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল আধুনিকতার ছোঁয়ায় হারিয়ে যাচ্ছে ঈশ্বরদীতে গ্রামীন ঐতিহ্য মৃৎশিল্প ঈশ্বরদী বাজারে বেড়েছে চালের দাম, বিপাকে নিম্ন আয়ের মানুষ ঈশ্বরদীতে কৃষকের হা-হুতাশ: খরায় মরছে শিমগাছ তুরাগে রিকশার গ্যারেজে বিস্ফোরণে দগ্ধ ৮ জনই মারা গেলেন কুষ্টিয়া ভেড়ামারায় পেট্রোল পাম্পে বিস্ফোরণে দুজন নিহত বিদ্যুৎ সাশ্রয়ে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে দুদিন ছুটির বিষয়ে ভাবছে সরকার ঈশ্বরদীতে ৩ কেজি গাঁজাসহ এক মাদক ব্যবসায়ী আটক লালপুরে এক কোটি টাকার মাদকসহ ৩ ব্যবসায়ী আটক সাঁথিয়ায় নকল প্রসাধনী প্রস্তুত ও বিক্রির দায়ে ভ্রাম্যমাণ আদালতে কারাদণ্ড সহ জরিমানা আদায় 

রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের যন্ত্রাংশবাহী জাহাজ মোংলায়

বার্তা কক্ষঃ
প্রকাশিতঃ রবিবার, ১৪ অগাস্ট ২০২২, ০৩:০২ পূর্বাহ্ন

রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের যন্ত্রাংশ নিয়ে রাশিয়ান পণ্যবাহী জাহাজ দীর্ঘ সাড়ে ৯ মাস পর মোংলা বন্দরে নোঙ্গর করেছে।

সোমবার (১ আগস্ট) বিকেল ৫ টায় বন্দরের ৬নং জেটি এলাকায় এসে ভিড়েছে ‘এম ভি কামিল্লা’ নামক এ জাহাজটি।

এর আগে সর্বশেষ ২০২১ সালের ১৭ অক্টোবর বিদ্যুৎ প্রকল্পের পণ্যবোঝাই ‘এম ভি ফেসকো আলিশা’ নামের একটি জাহাজ রাশিয়া থেকে এসেছিল। সে জাহাজেও রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের ৩ হাজার ৭০০ মেট্রিক টন বিদ্যুৎ কেন্দ্রের যন্ত্রাংশ ছিল।

পদ্মা সেতু চালু হওয়ায় সল্প সময়ের মধ্যে প্রথমবারের মতো সড়ক পথে মোংলা বন্দর থেকে পাবনার ঈশ্বরদীতে নির্মাণাধীন পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের পণ্য নিয়ে যাবেন মোংলা বন্দরের আমদানিকারক ব্যবসায়ীরা।

বন্দর সূত্রে জানা গেছে, পাবনার ঈশ্বরদীতে পদ্মা নদীর তীরে রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্র স্থাপনের পরিকল্পনা করছে সরকার। তাই ২০১৭ সালে এ প্রকল্পটি নির্মাণের কাজ আনুষ্ঠানিকভাবে উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এ প্রকল্পের কাজের মালামাল রাশিয়া থেকে আমদানি করারও পরিকল্পনা করেন প্রধানমন্ত্রী। তাই প্রকল্পটির কাজ শুরু হওয়া থেকেই রাশিয়া থেকে মেশিনারিজ ও সব মালামাল আমদানি করা হয়। কিন্তু রাশিয়া-ইউক্রেন সংঘাত শুরু হওয়ার পর আর কোনো চালান আসেনি। যদিও ২টি চালান আসার কথা ছিল।

মোংলা বন্দরের হারবার বিভাগ রাশিয়ার জাহাজ নোঙ্গর করার বিষয়টি নিশ্চিত করে জানিয়েছে, সোমবার (১ আগস্ট) বিকেল ৫ টায় বন্দরের ৬ নম্বর জেটিতে রাশিয়ার পতাকাবাহী ‘এম ভি কামিল্লা’ নামের জাহাজ নোঙ্গর করেছে।

রূপপুর পারমাণবিক বিদুৎ কেন্দ্রের জন্য মোংলা বন্দরে আমদানি হওয়া মেশিনারিজ পণ্যের খালাসকারী ও শ্রমিক ঠিকাদার প্রতিষ্ঠান মেসার্স নুরু অ্যান্ড সন্সের স্বত্ত্বাধিকারি আলহাজ এইচ এম দুলাল বলেন, রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রের ৩ হাজার ৩২৮ দশমিক ২৩৭ মেট্রিক টন মেশিনারিজ পণ্য নিয়ে সোমবার বিকেলে জাহাজটি মোংলা বন্দরে এসে পৌঁছায়। তবে রাশিয়া-ইউক্রেন সংঘাত দেশ দুইটির অভ্যন্তরীণ বিষয় হলেও সংঘাতের কারণে নৌপথে পণ্য নিয়ে জাহাজ আসতে দেরি হয়েছে বলে ব্যবসায়ীরা ধারণা করছেন। তবে রাশিয়া-ইউক্রেন সংঘাতের জন্য কিছুদিন বিরতি থাকলেও রাশিয়ার সঙ্গে বাণিজ্য সম্পর্ক ভালো থাকায় এখন থেকে নিয়মিতভাবে রাশিয়ান পতাকাবাহী জাহাজে করে পণ্য আসবে।

তিনি আরও বলেন, রাশিয়ার তামারুক বন্দর থেকে রূপপুর পারমাণবিক বিদুৎকেন্দ্রের মালামাল নিয়ে গত ২৮ জুন জাহাজটি ছেড়ে আসে। এ জাহাজে ১৩ জন নাবিক রয়েছেন। বিকেলে জাহাজটি নোঙ্গর করার পর সন্ধ্যা থেকে মেশিনারিজ পণ্য খালাস শুরু হবে। আবহাওয়া অনুকূলে থাকলে ২ থেকে ৩ দিনের মধ্যে এ সব পণ্য খালাস শেষে জাহাজটি বন্দর ত্যাগ করবে।

এ বিষয়ে মোংলা বন্দর কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান রিয়ার এডমিরাল মোহাম্মদ মুসা বলেন, রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রে সর্বশেষ গত ২০২১ সালের ১৭ অক্টোবর রাশিয়ার জাহাজ এসেছিল। সে জাহাজে রূপপুর পারমাণবিক কেন্দ্রের ৩ হাজার ৭০০ মেট্রিক টন মালামাল ছিল। পদ্মা সেতু চালু হওয়ায় মোংলা বন্দর থেকে এই প্রথম সড়কপথে পদ্মা তীরে ঈশ্বরদীতে নির্মাণাধীন পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রের যন্ত্রাংশ নিয়ে যাবেন দেশের আমদানিকারক ব্যবসায়ীরা।

শেয়ার করুন...


এই বিভাগের আরো খবর........
.
এক ক্লিকে বিভাগের খবর
error: কপি করার অনুমতি নেই !
error: কপি করার অনুমতি নেই !