রবিবার, ০৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০১:২৭ অপরাহ্ন
শিরোনামঃ
শিরোনামঃ
ঈশ্বরদীতে প্রথম আন্তর্জাতিক ক্বিরাত সম্মেলন অনুষ্ঠিত ঈশ্বরদী মহিলা কলেজে একাদশ শ্রেণির নবীন বরণ অনুষ্ঠিত বেলায়েত খান উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক-সভাপতির বিরুদ্ধে নিয়োগ বানিজ্য ও অর্থ আত্মসাৎ এর অভিযোগ রাজশাহীর জনসভায় প্রধানমন্ত্রীর সাথে রেজাউল রহিম লালের সৌজন্য সাক্ষাত ঈশ্বরদীতে একদিনে সাতটি দোকানে দুর্ধর্ষ চুরি ঈশ্বরদীতে শেখ কামাল আন্ত:স্কুল ও মাদরাসা অ্যাথলেটিকস প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত রাশিয়া থেকে পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রের মাল নিয়ে মোংলায় ২টি জাহাজ সারদায় প্রশিক্ষণ সমাপনী কুচকাওয়াজ অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী রাজশাহীতে আ’লীগের জনসভা উপলক্ষে ঈশ্বরদী থেকে যুক্ত হলো আরো একটি স্পেশাল ট্রেন ঈশ্বরদীতে বে-সরকারি বিদ্যুৎ শ্রমিক ইউনিয়নের চড়ুই ভাঁতী অনুষ্ঠিত

জেলা-উপজেলায় শিশুদের করোনা টিকা ১১ অক্টোবর

বার্তাকক্ষ
আজকের তারিখঃ রবিবার, ০৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০১:২৭ অপরাহ্ন
স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্য সেবা বিভাগ

মহামারি করোনা প্রতিরোধে ৫ থেকে ১১ বছরের শিশুদের জেলা-উপজেলা পর্যায়ে টিকাদান কর্মসূচি আগামী ১১ অক্টোবর থেকে শুরু হচ্ছে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের সচিব ড. মো আনোয়ার হোসেন হাওলাদার।

শনিবার (১৭ সেপ্টেম্বর) দুপুর ১২টায় রাজধানীর হোটেল রেডিসনে আয়োজিত ‘৫-১১ বছরের শিশুদের কোভিড-১৯ টিকা কার্যক্রম বিষয়ক জাতীয় অ্যাডভোকেসি ওয়ার্কশপ’ শীর্ষক অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা জানান।

ড. মো আনোয়ার হোসেন হাওলাদার বলেন, আগামী ১১ অক্টোবর থেকে পৌরসভা পর্যায়ে টিকা কার্যক্রম শুরু করব। এতে করে কমিউনিটি পর্যায়ে আমাদের শিশুদের কাছে টিকা পৌঁছে যাবে। এর মাধ্যমে টিকা না পাওয়া শিশুরা টিকার আওতায় চলে আসবে।
তিনি আরও বলেন, অনেক দেশে বাচ্চাদের টিকাদান শুরু হয়নি, আমরা শুরু করেছি। প্রথম থেকেই টিকার জন্য বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার কাছে আবেদন করে রেখেছিলাম, আমরা অনুমোদন পাওয়ার পরপরই কার্যক্রম শুরু করে দিয়েছি। আগে থেকেই আমরা টিকার সোর্স নিশ্চিত করেছি।

স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের সচিব বলেন, আমাদের মানুষের মধ্যে একটা অভ্যাস গড়ে উঠেছে যে, করোনা প্রকোপ বেড়ে গেলেই তাদের মধ্যে টিকা নেওয়ার প্রবণতা বেড়ে যায়। এই মানসিকতার পরিবর্তন দরকার। এখন পর্যন্ত করোনায় যারা মারা যাচ্ছেন, তারা টিকা নেননি। এমনকি টিকা না নিয়ে কোভিডে আক্রান্ত হচ্ছেন, তারা অনেকটাই ঝুঁকিতে চলে যাচ্ছেন।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী জাহিদ মালেক।

অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল বাসার খুরশিদ আলম, অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা, আহমেদুল কবির ও স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের টিকা কর্মসূচির পরিচালক ডা. শামসুল।

শেয়ার করুন...


এই বিভাগের আরো খবর........
.
এক ক্লিকে বিভাগের খবর
error: কপি করার অনুমতি নেই !
error: কপি করার অনুমতি নেই !